রাজশাহীতে আবারো ওয়ার্ড পর্যায়ে টিকাদান ১৪ ও ১৬ আগস্ট

রাজশাহীতে আবারো ওয়ার্ড পর্যায়ে টিকাদান ১৪ ও ১৬ আগস্ট

রাজশাহী ব্যুরো:রাজশাহী সিটি করপোরেশন (রাসিক) এলাকার ওয়ার্ড পর্যায়ে আবারো করোনা টিকার বিশেষ ক্যাম্পেইন অনুষ্ঠিত হবে। শনিবার (১৪ আগস্ট) ও সোমবার (১৬ আগস্ট) এ ক্যাম্পেইনে মডার্নার টিকা দেওয়া হবে।
তবে এবার মাত্র দু’দিনই প্রথম ডোজের টিকা দেওয়া হবে। কেবলমাত্র নিবন্ধিতদেরই এ টিকা দেওয়া হবে। সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত মহানগরের ৩০টি ওয়ার্ডের ৮৪ কেন্দ্রে এ টিকা দেওয়া হবে। সংশ্লিষ্টরা তাই নিজ নিজ ওয়ার্ডেই মডার্নার টিকা নিতে পারবেন।  

জানতে চাইলে রাজশাহী সিটি কপোরেশনের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. এফ এ এম আঞ্জুমান আরা বেগম শুক্রবার (১৩ আগস্ট) দুপুরে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।  

তিনি জানান, প্রথম ডোজের জন্য নিবন্ধতিরাই এ টিকা নিতে পারবেন। সিটি মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটনের বিশেষ উদ্যোগে এ টিকা নিয়ে আসা হয়েছে।

এদিকে রাজশাহী সির্ভিল সার্জন ডা. কাউয়ুম তালুকদার জানান, মডার্নার টিকা ইতোমধ্যে রাজশাহীতে চলে এসেছে। এ টিকা শুধু সিটি করপোরেশন এলাকাতেই দেওয়া হবে। এজন্য সিটি করপোরেশনকে টিকা নিয়ে যাওয়ার জন্যও বলা হয়েছে।

এর আগে রাজশাহী মহানগরের ৩০টি ওয়ার্ডের ৮৪টি কেন্দ্রে ছয় দিনে দেড় লাখ মানুষকে টিকা দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছিল রাজশাহী সিটি করপোরেশন কর্তৃপক্ষ। কিন্তু মানুষের মধ্যে টিকাগ্রহণে অধিক আগ্রহ দেখা দেওয়ায় ৭ ও ৮ আগস্ট ৮৪টি কেন্দ্রে ৭৮ হাজার ৮৭৩ জনকে টিকা দিয়েই টিকা শেষ হয়ে যায়। পরে ওয়ার্ড পর্যায়ে করোনার গণটিকা কার্যক্রম স্থগিত ঘোষণা করা হয়। এরপর আবার মহানগরে চালু থাকা চারটি কেন্দ্রেও টিকার মজুদ শেষ হয়ে যায়। ফলে স্বাস্থ্য বিভাগের নিয়মিত টিকাদান কার্যক্রমও (প্রথম ডোজ) গত মঙ্গলবার (১০ আগস্ট) থেকে সাময়িকভাবে স্থগিত করা হয়েছিল। সেই টিকা আবার ১৪ ও ১৬ আগস্ট দেওয়া হবে।

এদিকে রাজশাহী বিভাগে বৃহস্পতিবার (১২ জুলাই) টিকা নিয়েছে ১০ হাজার ১৩৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৫ হাজার ২৯০ জন ও নারী ৪ হাজার ৮৪৯ জন। রাজশাহীতে টিকা নিয়েছে ২ হাজার ৬৯৬ জন। এর মধ্যে পুরুষ ১ হাজার ৪০৯ জন ও নারী ১ হাজার ২৮৭ জন। এছাড়া চাঁপাইনবাবগঞ্জে ১ হাজার ১৩৪ জন, পুরুষ ৫৭০ জন, নারী ৫৬৪ জন। নাটোরে ২৮৫ জনের মধ্যে পুরুষ ১৪৯ জন ও নারী ১৩৬ জন। নওগাঁয় ২ হাজার ৯৫৪ জন। পাবনায় ১৪৪ জনের মধ্যে পুরুষ ৯২ জন ও নারী ৫২ জন। সিরাজগঞ্জে ১ হাজার ১৪৯ জনের মধ্যে পুরুষ ৫৮৩ জন ও নারী ৫৬৬ জন। বগুড়ায় ১ হাজার ৩২৬ জনের মধ্যে পুরুষ ৭৪৯ জন ও নারী ৫৭৭ জন। জয়পুরহাটে ৪৫১ জনের মধ্যে পুরুষ ২৩৫ জন ও নারী ২১৬ জন করোনার টিকা গ্রহণ করেছেন।